• সমগ্র বাংলা

মা‌নিকগ‌ঞ্জে যমুনা নদী থেকে ২ দিন পর গার্মেন্টস কর্মকর্তার লাশ উদ্ধার

  • সমগ্র বাংলা
  • ২২ মে, ২০২২ ১৬:০৭:১৭

প্রতীকী ছবি

মো: সো‌হেল রানা খান, মা‌নিকগঞ্জ: মানিকগঞ্জের শিবালয় উপজেলায় যমুনা নদীতে গোসল করতে নেমে নিখোঁজের ২ দিন পর গার্মেন্টস কর্মকর্তা আহসান আশ হাবিবের (৪৩) ভাসমান লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। রবিবার (২২ মে) দুপুরে স্থানীয় লোকজন নদীতে ভাসমান অবস্থায় তার লাশ দেখতে পায়। পরে পাটুরিয়া নৌ থানার পুলিশ লাশ উদ্ধার করে।

পাটুরিয়া নৌ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু বকর সিদ্দিক বিষয়টি নিশ্চিত করেছে। নিহত ওই ব্যক্তির নাম আহসান আশ হাবিব (৪৩)। তিনি ঢাকার আশুলিয়ার ঘোষবাগ এলাকার নাসা গ্রুপের মহাব্যবস্থাপক ছিলেন। তার গ্রামের বাড়ি বগুড়া শহরের ফুলবাড়ি এলাকায়।    

স্ত্রী ও ১০ বছরের শিশু ছেলেকে নিয়ে তিনি সাভারের রেডিও কলোনি এলাকায় থাকতো। নৌপুলিশ, ফায়ার সার্ভিস এবং পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, ফেসবুকে শিবালয়ের জাফরগঞ্জ এলাকায় নদী ও প্রাকৃতিক দৃশ্যের ছবি দেখে ছুটির দিন থাকায় শুক্রবার সকালে তিনি স্ত্রী শামীমা নাসরিন ও ছেলে অহনকে নিয়ে বেড়াতে আসে শিবালয় উপজেলার জাফরগঞ্জ এলাকায়। দিন ভর ঘুরা ঘুরি শেষে। বিকেলে যমুনা নদীর তীরে স্ত্রী সন্তানকে বসিয়ে রেখে নদীতে গোসল করতে নামে। একপর্যায়ে তিনি নদীতে ডুবে যায়। এরপর থেকে যমুনা নদীতে স্থানীয় লোক, ফায়ার সার্ভিস ও নৌ পুলিশের ডুবুরি দলও উদ্ধার অভিযান চালায়। তবে হাবিবের সন্ধান পায়নি।    

আজ বেলা ১১টার দিকে ঘটনাস্থলের ২ শ মিটার দুরে জাফরগঞ্জ এলাকায় ওই ব্যক্তির লাশ ভেসে ওঠলে স্থানীয় লোকজন নদীর তীরে নিয়ে আসে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করে পাটুরিয়া নৌ থানার পুলিশ। 

পাটুরিয়া নৌ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু বকর সিদ্দিক জানায়, আহসান আশ হাবিবের ছবি দেখে লাশের পরিচয় শনাক্ত করা হয়েছে। নিহত ব্যক্তির স্বজনদের খবর দেওয়া হয়েছে। তারা ঘটনাস্থলে আসছে। প্রয়োজনীয় আইনি প্রক্রিয়া শেষে লাশ স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হবে। 

মন্তব্য ( ০)





  • company_logo